মোদী সরকার

কোন পাঁচতারা হোটেল অথবা দামি রেস্তোরাঁ না, এটা হল নতুন ভারতের রেলওয়ে স্টেশন। সৌন্দর্যতা দেখলে অবাক হবেন

পুরনো, নোংরা, ভয়াবহ রেল স্টেশনের দিনগুলি শেষ হয়ে যাচ্ছে। ভারতীয় রেলওয়ে যাত্রীদের সবচেয়ে আরামদায়ক অভিজ্ঞতা দিতে রেল স্টেশনগুলি আপগ্রেড এবং রূপান্তর করার জন্য কাজ করছে। ভারতের রেলওয়ে স্টেশন ডেভেলপমেন্ট কর্পোরেশন (আইআরএসডিসি) এই বছর ৫০ টি রেলওয়ে স্টেশন উন্নয়নের জন্য ৭৫০০ কোটি টাকা বিনিয়োগ করতে চলেছে।

দেশের বিভিন্ন রেলওয়ে স্টেশন যেমন জয়পুর, ম্যান্ডুদিহ, শিলিগুড়ি জংশন, নয়া দিল্লী, হজাই, মথুরা জংশন, তিরুপতী ইত্যাদি ইতিমধ্যে আপগ্রেড এবং নতুন রুপে সাজানো হয়েছে। এবং রেলওয়ের এই আর্থিক বছরে দেশের প্রায় ৭০ টি রেল স্টেশনগুলির উন্নয়নের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

সম্প্রতি উত্তরপ্রদেশের বারেলি শহরের ইজ্জতনগর রেলওয়ে স্টেশন একটি নতুন রুপে সেজেছে। ছবিগুলি দেখে আপনি মনে করতে পারে যে এটি একটি পাঁচ তারা হোটেল অথবা কোন বিলাসবহুল রেস্টুরেন্ট। কিন্তু ঘাবড়ে যাবেন না, এটা আমাদের নতুন ভারতের নতুন রুপে সাজানো রেল স্টেশন। যেটা যেকোন বিলাসবহুল হোটেলকেও হার মানাতে পারে।

কেন্দ্রে মোদী সরকার আসার পর থেকেই ভারতীয় রেলকে উন্নত করার জন্য নানারকম পদক্ষেপ নিয়েছে। কখনো বুলেট ট্রেন অথবা কখনো অত্যাধুনিক হাইপারলুপ ট্রেন। আবার দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি দেশের সবথেকে অত্যাধুনিক ‘বন্দে ভারত এক্সপ্রেস”।

শুধু নতুন ট্রেন উদ্বোধন করে, অথবা বুলেট ট্রেনের কাজ শুরু করে থেমে থাকেনি মোদী সরকার। দেশের প্রতিটি রেল স্টেশনকে স্বচ্ছ এবং সুন্দর বানানোর পরিকল্পনাও নিয়েছে মোদীর সরকার। আর এরফলে আজ দেশের প্রতিটি স্টেশনই আধুনিক, স্বচ্ছ এবং সুসজ্জিত।

আর ইজ্জতনগর রেল স্টেশন হল মোদী সরকারের নিরলস কাজের দৃষ্টান্ত। আপনি এই স্টেশনে গেলে ঘাবড়ে যাবেন, যে এটা ভারতের স্টেশন না কোন পাঁচ তারা হোটেল।

Facebook Comments
319 Shares

Related Articles

Close